স’রকারি নির্দেশনা মো’তাবেক আগামীকাল রোববার (১০ মে) থেকে রাজধানীর কোন কোনো জায়গায় দোকানপাট এবং শপিংমল, বিপণি-বিতান খুলতে যাচ্ছে। দেশে ক’রোনাভা’ইরাসেের প্র’কোপ দিন দিন বে’ড়েই চলেছে। তারপরেও চলমান রমজান এবং আসন্ন ঈদের কথা মা’থায় রেখে বাংলাদেশ দোকান মালিক সমিতির আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে শর্তসাপেক্ষ সীমিত পরিসরে দোকান খোলার অনুমতি দিয়েছে স’রকার।

এই নির্দেশনা অনুসারে স্বা’স্থ্যবিধি মে’নে এরইমধ্যে নিজেদের বেশিরভাগ আউটলেট খোলার ঘোষণা দিয়েছে দেশীয় ফ্যাশন ও লাইফস্টাইল ব্র্যান্ড আড়ং ও বাংলাদেশের জুতা তৈরিকারক প্রতিষ্ঠান এপেক্স ও বাটা।

নিউমার্কেট ব’ন্ধ থাকলেও খুলছে এর উল্টো পাশের গাউছিয়া, চাঁদনী চক, ইস্টার্ন মল্লিকা, ইস্টার্ন প্লাজা, এলিফ্যান্ট রোডের সব দোকান।

আরো যেসব দোকান, শপিংমল, বিপণি-বিতান খুলছে:

গুলশান ১ ও ২ নম্বর সেকশনের ডিনএসসি মার্কেট এবং গাজী শপিং কমপ্লেক্স।

যাত্রাবাড়ী আয়েশা মোশারফ শপিং সেন্টার, বুড়িগঙ্গা সেতু মার্কেট, রহমান প্লাজা, হাবিবুল্লাহ সুপার মার্কেট, ফার্নিচার মার্কেট ও টাইলস মার্কে’টের বেশ কিছু ব্যবসা প্রতিষ্ঠান, স্টিল ফার্নিচার মার্কেট সম্পূর্ণরূপে খোলা থাকবে।

উত্তরা কাজী ভবন ও বেশ ভবন, নিউ এলিফ্যান্ট রোড খোলা থাকবে।

আইডি’বি ভবন আগারগাঁও কম্পিউটার মার্কেট।

ডিআইটি ফকিরাপুল মার্কেট খোলা থাকবে।

মিরপুর রোডে লাটিমী শপিং মল, জাহান ম্যানশন, গোল্ডেন মার্কেট থাকবে।

মিরপুর রোডের কাপড়ের দোকান, পাঞ্জাবির দোকান, জুতার দোকান, এবং আল্পনা প্লাজা খোলা থাকবে।

মোহাম্মদপুর ও মিরপুর রোডের রাস্তার পাশের দোকানগুলোও খোলা থাকবে।

নিউ মার্কেট সংলগ্ন নিউ সুপার মার্কেট এবং ক্রোকারিজের মার্কেট খোলা থাকবে।

গাউছিয়া সংলগ্ন গোল্ডেন প্লাজাও খোলা থাকবে।

বাংলাদেশের সর্ববৃহৎ আইটি মার্কেট মাল্টিপ্লান সেন্টারও খোলা থাকবে।

উত্তরা আলাউদ্দিন টাওয়ার h&m ও রাস্তার পাশের কিছু দোকান খোলা থাকবে।

টপ টেন ব্র্যান্ড বেশিরভাগ জায়গাতেই খোলা থাকবে।

এলিফ্যান্ট রোডের ট্রপিক্যাল সেন্টার, সুবাস্তু আর্কেড খোলা থাকবে।

Leave a comment

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।