অল্প বয়সে প্রেম থেকে বিয়ে, ১ বছর সংসারের পর জামাইয়ের বি’রুদ্ধে ধ”ণ মা’মলা

স্বাধীন নিউজ ২৪.কম
প্রকাশ : নভেম্বর 11, 2021 12:13:35 অপরাহ্ন
0
11
views

সারাদেশ: অল্প বয়সেই প্রেমের সম্পর্ক শুরু হয় নাজমুল হাসান ও ছবি আক্তারের মধ্যে। প্রেম থেকে গড়ায় অপ্রাপ্ত বয়সে বিয়ে। সংসারও চলে ১ বছরের বেশি। এরপর বাবার বাড়ি গিয়ে আর ফিরে আসেনি স্ত্রী ছবি। পরে শ্বশুর এমাদুল জামাতার বি’রুদ্ধে ঠুকে দিলেন ধ”ণ ও অ’পহরণ মা’মলা। আর সেই মা’মলায় গ্রে’ফতারি পরোয়ানা মাথায় নিয়ে ঘুরছে স্বামী নাজমুল। এমনই ঘটনা ঘটেছে বরগুনার পাথরঘাটায়।

মা’মলায় উল্লেখ করা হয়েছে, চলতি বছরের ১০ সেপ্টেম্বর ঐ উপজে’লার কাঠালতলী ইউনিয়নের কালীবাড়ি গ্রামের শহিদুল ইসলামের ছেলে নাজমুল ও তার সহযোগীরা ছবি আক্তারকে অ’পহরণ করে দুইদিন ধ”ণ করে। এরপর পাশের বাদামতলা এলাকায় রেখে যায়। পরে ২০ সেপ্টেম্বর নাজমুলের বি’রুদ্ধে ধ”ণ ও অ’পহরণ মা’মলা করেন বরগুনা নারী ও শি’শু নি’র্যাতন দ’মন ট্রাইব্যুনালে বাবা এমাদুল হক।

নাজমুলের পরিবার জানায়, নাজমুলের সঙ্গে ছবির প্রেমের সম্পর্ক হয়। এরপর নাজমুলের বাড়িতে ছবি আক্তার স্ত্রীর দাবি নিয়ে আসায় ওই সম্পর্ক বিয়ে পর্যন্ত গড়ায়। ২০২০ সালের জুলাই মাসে স্থানীয় ইউপি সদস্য আবদুর রহমানের মধ্যস্থতায় পারিবারিকভাবে বয়স না হওয়ায় ৩০০ টাকার স্ট্যাম্পে নিকাহ রেজিস্ট্রি ছাড়াই স্থানীয় মৌলভীর দ্বারা বিয়ে হয়। নাজমুলের মা প্রতিব’ন্ধী হওয়ায় সংসারের দায়িত্ব পড়ে যায় স্ত্রী ছবির ও’পর।

সংসারের কাজ থেকে পরিত্রাণ পাওয়ার জন্য ছবি আক্তার বাবার বাড়িতে গিয়ে ওঠে। বাড়িতে না আসায় নাজমুল তার স্ত্রীকে একাধিকবার আনতে গেলেও সে আসবে না বলে জানিয়ে দেয়। ১ বছরের দাম্পত্য জীবনের ইতি টানতে চলতি বছরের ২০ সেপ্টেম্বর জামাই নাজমুলের বি’রুদ্ধে ধ”ণ ও অ’পহরণ মা’মলা করেন ছবি আক্তারের বাবা এমাদুল হক।

স্থানীয় মৌলভী আব্দুল মান্নান মুন্সি বলেন, প্রথমে আমি বিয়ে পড়াতে চাইনি। ইউপি সদস্যের নির্দেশেই বিয়ে পড়িয়েছি। অ’ভিযোগ অস্বীকার করে কাঠালতলী ইউনিয়নের মেম্বার আব্দুর রহমান জানান, তিনি এ বি’ষয়ে কিছুই জানেন না। মা’মলার বা’দী এমাদুল হক বলেন, আমার মেয়েকে নাজমুলসহ আরো দুইজন মোটরসাইকেলে তুলে নিয়ে দুইদিন পর বাদামতলা নামক স্থানে ফে’লে রেখে যায়। নাজমুল আমার মেয়েকে ধ”ণ করেছে। ওর উপযুক্ত শা’স্তি চাই।