পাকিস্তানি সেজেও বাঁচতে পারেনি কোহলির মেয়েকে ধ”ণের ‘হু’মকিদাতা’

স্বাধীন নিউজ ২৪.কম
প্রকাশ : নভেম্বর 11, 2021 09:55:07 পূর্বাহ্ন
0
13
views

আন্তর্জাতিক: টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ভারত টানা দুই ম্যাচ হারার পর বিরাট কোহলির মেয়েকে ধ”ণের হু’মকি দেওয়ার অ’ভিযোগে এক যুবককে গ্রে’ফতার করা হয়েছে। বুধবার (১০ নভেম্বর) হায়দরাবাদ থেকে ২৩ বছর বয়সী ওই যুবককে গ্রে’ফতার করেছে মুম্বাই পুলিশের একটি বিশেষ দল। ভারতীয় সংবাদমাধ্যমগুলোর খবর, রামনাগেশ শ্রীনিবাস আকুবাথিনি নামে ওই যুবক সফটওয়্যার ইঞ্জিনিয়ার।

আগে একটি ফুড ডেলিভারি অ্যাপে কাজ করলেও বর্তমানে তিনি বেকার। অ’ভিযোগ উঠেছে, টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে নিউজিল্যান্ডের কাছে ভারত হেরে যাওয়ার পর বিরাট কোহলি-আনুশকা শর্মা দম্পতির নয় মাস বয়সী মেয়েকে ধ”ণের হু’মকি দেন ওই যুবক। তারপর থেকেই সাইবার ক্রা’ইম বিশেষজ্ঞদের সাহায্যে তাকে খুঁজতে শুরু করে মুম্বাই পুলিশ।

চমকপ্রদ বি’ষয় হলো, বিরাটের মেয়েকে ধ”ণের হু’মকি দেওয়ার পর নিজের টুইটার হ্যান্ডেল পুরোপুরি বদলে ফে’লেন অ’ভিযুক্ত। টুইটারে নিজেকে পাকিস্তানি হিসেবে তুলে ধরার চেষ্টা করেন তিনি। কিন্তু কোনো জারিজুরিই কাজে আসেনি। শেষপর্যন্ত পুলিশের হাতে ঠিকই ধরা পড়তে হয়েছে তাকে। জি’জ্ঞাসাবাদের জন্য অ’ভিযুক্তকে মুম্বাই নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

প্রসঙ্গত, টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে পাকিস্তানের কাছে হারের পরে ভারতীয় ক্রিকেটাররা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ব্যাপক আ’ক্রমণের শি’কার হন। সবচেয়ে বেশি আ’ক্রমণ করা হয় ফাস্ট বোলার মোহম্ম’দ শামিকে। এর প্র’তিবাদে তৎকালীন ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলি বলেছিলেন, শামি ভারতকে অনেক ম্যাচ জিতিয়েছেন। শুধু ধর্মের কারণে তাকে আ’ক্রমণ করা অন্যায়।

এরপর দ্বিতীয় ম্যাচে নিউজিল্যান্ডের কাছে হারের পর অনলাইনে হে’নস্তার শি’কার হন কোহলি নিজেই। এমনকি তার শি’শুকন্যা ভামিকাকে ধ”ণের হু’মকি দেওয়া হয়। এমন জঘন্য হু’মকির জেরে আলোড়ন সৃষ্টি হয় ভারতজুড়ে। অ’পরাধীকে ধরতে উঠেপড়ে লাগে কর্তৃপক্ষ। দিল্লির মহিলা কমিশনও এ বি’ষয়ে হস্তক্ষেপ করে। দিল্লি পুলিশ কমিশনারকে এ ঘটনার এফআইআ’র প্রতিলিপি জমা দেওয়ার আহ্বান জানায় তারা।

সূত্র: এনডিটিভি