স্বা’মীকে বাঁ’চাতে স্ত্রী’র প্রা’ণপণ চে’ষ্টার যে দৃ’শ্যে হৃ’দয় কাঁ’পে

স্বাধীন নিউজ ২৪.কম
প্রকাশ : এপ্রিল 27, 2021 09:44:10 পূর্বাহ্ন
0
6
views

অনলাইন ডেস্ক: ক’রোনাভা’ইরাসের দ্বিতীয় ঢেউয়ের তা’ণ্ডবলীলায় লণ্ডভণ্ড ভারত। হাসপাতালে জায়গা হচ্ছে না অনেক ক’রোনা রো’গীর। রাস্তায় রাস্তায় উদ্ভ্রান্তের মতো ঘুরছেন অনেকে। কেউ কেউ দম ফে’লে অসাড় হয়ে পড়ে আছেন লা’শ হয়ে ফুটপাতে, অটোরিকশায়, হাসপাতালের করিডোরে। হাসপাতালে অক্সিজেন আর ও’ষুধের অভাবের তীব্রতা চ’রমে।

স্থানীয় দোকানগুলোতে অক্সিজেন সিলিন্ডারের খোঁজ করতে করতে রো’গীর স্বজনরা অ’সুস্থ হয়ে পড়ছেন। ছয় হাজার টাকার সিলিন্ডারের দাম আকাশচুম্বী। অনেকে ৫০ হাজার টাকায় রাজি হয়েও হাতে পাচ্ছেন না। মূলত অক্সিজেনের অভাবে মা’রা যাচ্ছে হাজার হাজার মানুষ। ম’রদেহের চিতা জ্বলার আ’গুনেধোঁয়াচ্ছন্ন ভারতের আকাশ। আর এসব করুণ দৃশ্য ফেসবুক, টুইটার, ইনস্টাগ্রামের মতো সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে দেখছে গোটা বিশ্ব।

এদের মধ্যে অনেক ছবি ভাইরাল হয়েছে। অনেকেই নিজেদের টাইমলাইনে শেয়ার করে ভারতের নাগরিকদের জন্য প্রার্থনা করছেন। ক’রোনার ভ’য়াবহতা বুঝিয়ে সতর্ক থাকতে বলছেন। এসব করুণ দৃশ্যের মধ্যে রোববার থেকে ভাইরাল একটি ছবি, যা গোটা বিশ্বকে কাঁপিয়ে দিয়েছে। এ ছবি দেখে পাষাণ হৃদয়ের মানুষের চোখেও গড়গড় করে জল গড়িয়ে পড়বে।

ছবিতে দেখা গেছে, ক’রোনাক্রান্ত এক ব্যক্তিকে বাঁচাতে নিজের জীবনের ঝুঁ’কি নিলেন এক নারী। অটোরিকশায় করে হাসাপাতালের উদ্দেশ্যে যাচ্ছিলেন তারা। ওই নারীর হাতে পানির বোতল ও অন্যহাতে মোবাইল ফোন। এ সময় ব্যক্তিটির শ্বাস বন্ধ হওয়া উপক্রম। তাকে বাঁচাতে নিজের মুখ দিয়ে ওই নারী অক্সিজেন দেওয়ার চেষ্টা করে যাচ্ছেন প্রা’ণপণে।

বিভিন্ন ভারতীয় গণমাধ্যমে প্রকাশ, ছবিটি ভারতর উত্তর প্রদেশ রাজ্যর আগরায় তোলা। ক’রোনায় আ’ক্রান্ত স্বামী রবি সিংঘালকে বাঁচাতে এভাবে প্রা’ণপণ চেষ্টা করে যাচ্ছিলেন তার সহধর্মিণী রেনু সিংঘাল। উত্তরপ্রদেশের আগরার আভাস বিকাশ সেক্টর ৭ এর বাসিন্দা এই দম্পতি। তার স্বামীর হঠাৎ করেই শ্বাসক’ষ্ট দেখা দিলে তিনি তাকে স্বরোজিনি নাইরু মেডিকেল কলেজ অ্যান্ড হসপিটালের (এসএনএমসি) উদ্দেশ্যে নিয়ে যেতে থাকেস।

কিন্তু পথিমধ্যে রবি সিংঘালের দম বন্ধ হয়ে যেতে থাকে। এ সময় স্বামীকে বাঁচাতে নিজেই মুখ দিয়ে অক্সিজেন দেওয়া চেষ্টা করতে থাকেন রেনু। নিজের ক’রোনায় আ’ক্রান্ত হওয়ার ঝুঁ’কি থাকলেও স্বামীকে বাঁচাতে সে কথা ভু’লে যান রেনু। চোখের সামনে স্বামীর দম বন্ধ হয়ে মা’রা যাচ্ছেন, তা সহ্য করতে পারছিলেন না রেনু। জানা গেছে, এমন ঝুঁ’কি নিয়েও শেষমেষ আর স্বামীকে বাঁচাতে পারেননি রেনু। আগ্রার একটি হাসপাতালের বাইরে অটোর মধ্যেই রবি সিংঘালের মৃ’ত্যু হয়।